শুক্রবার, ১৯শে জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

শিরোনাম

উদয়ের কারণে আগের সংসার ভেঙে গিয়েছে , এখন বিয়ে না করলে আত্মহত্যা করবো !

                            উদয়ের কারণে আগের সংসার ভেঙে গিয়েছে , এখন বিয়ে না করলে আত্মহত্যা করবো ! - সংবাদের আলো

উজ্জ্বল অধিকারী: উদয় আমার সঙ্গে তিন বছর প্রেম করে বিয়ের আশ্বাস দিয়েছে। আমাকে আগের স্বামীকে ডিভোর্স দিতে বাধ্য করেছে। আমার আগের সংসার ভেঙে দিয়েছে। এখন যদি সে আমাকে বিয়ে না করে তাহলে আমি আত্মহত্যা করবো – এমনই মন্তব্য করছেন সিরাজগঞ্জের বেলকুচি পৌর এলাকার সূবর্নসাড়া হিন্দুপাড়া গ্রামের উত্তম পোদ্দারের বাড়িতে বিয়ের দাবিতে অনশন করা এক তরুণী।

ওই তরুণী আরও জানায়, বেলকুচি পৌর এলাকার সূবর্নসাড়া গ্রামের উত্তম পোদ্দারের ছেলে উদয় পোদ্দার আমাকে বিয়ের আশ্বাস দিয়ে বিভিন্ন জায়গায় নিয়ে গিয়ে শারীরিক সম্পর্ক স্থাপন করেছে। শুধু তাই নয় তিন বছর এভাবে সম্পর্ক রেখে আমাকে আগের স্বামীকে ডিভোর্স দিতে বাধ্য করেছে। এছাড়াও আমাকে বিয়ে করবে বলে বিভিন্ন সময় আমার কাছ থেকে ৬ লাখ টাকা ও স্বর্ণালংকার নিয়েছে। ও আমার জীবন নষ্ট করে এখন আমার সঙ্গে যোগাযোগ করে না। তাই আমি ওর বাসায় এসেছি। আসার পর থেকে ওর বাবা-মা আমার কাছে এসে এখন ১০ লাখ টাকা ও ১০ ভরি স্বর্ণ যৌতুক বাবদ দাবি করছে। আমি এগুলো যদি না দিতে পারি তাহলে উদয়ের সঙ্গে বিয়ে দেবে না বলেছে। আর উদয় যদি আমাকে না বিয়ে করে তাহলে আমি আত্মহত্যা করবো।

এবিষয়ে উদয়ের বাবা উত্তম পোদ্দার বলেন, আমি কোন যৌতুক দাবি করিনি। গতরাতে থানা থেকে পুলিশ এসে সামাজিকভাবে বসে মিমাংসা করতে বলে দিয়েছে। আমি সে ব্যবস্থা নিচ্ছিলাম কিন্তু আমার পক্ষে এই মেয়েকে ছেলে সঙ্গে বিয়ে দেওয়া সম্ভব নয়। তাতে যা হয় হবে।

বেলকুচি থানা অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) আহসানুজ্জামান জানান, আমরা গতরাতে বিষয়টি অবহিত হবার পর ঘটনাস্থলে গিয়েছিলাম। মেয়ে ও ছেলের পরিবারের মৌখিক জবানবন্দি নিয়ে এসেছি। ছেলের বাবা আমাকে কথা দিয়েছিল যে মেয়েকে তার ছেলে সঙ্গে সকাল বেলা বিয়ে দেবে। তারপরও তারা যদি আইনগত সহযোগিতা চায় তাহলে আমরা আইনগত সহযোগিতা দেব।

সংবাদের আলো বাংলাদেশ সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো।

----- সংশ্লিষ্ট সংবাদ -----